‘তাসকিন-শরিফুলদের নিয়ে আমি গর্বিত’

ঘরের মাঠে যে কোনো দলই শক্তিশালী। বিশেষ করে টেস্টের বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন দল তো আরও শক্তিশালী হওয়ার কথা। আর সেই শক্তিশালী কিউইদের বিপক্ষে মাউন্ট মঙ্গানুইয়ে টেস্টের প্রথম দিনটি ভালোয় ভালোয় কাটিয়েছে বাংলাদেশ।

শনিবার প্রথম দিনে টস হেরে ব্যাটিংয়ে নেমেই ১ রানে অধিনায়ক টম লাথামের উইকেট হারায় নিউজিল্যান্ড। দিন শেষে স্বাগতিকদের সংগ্রহ ৫ উইকেট ২৫৮ রান।

প্রথম দিনে দুর্দান্ত বোলিং কয়েছেন জাতীয় দলের তরুণ পেসার শরিফুল ইসলাম ও তাসকিন আহমেদ। শরিফুলের বলে আউট হন নিউজিল্যান্ডের অধিনায়ক টম লাথাম ও সাবেক অধিনায়ক রস টেলর।

আরেক তরুণ পেসার এবাদত হোসেনের শিকার হন কিউই উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান টম বান্ডেল। সেঞ্চুরি তুলে নেওয়া ডেভন কনওয়েকে আউট করেন বাংলাদেশ দলের অধিনায়ক মুমিনুল হক সৌরভ।

প্রথম দিনের খেলা শেষে বাংলাদেশ দলের পেস বোলিং কোচ ওটিস গিবসন বলেন, সব পেসারই ভালো করেছে। ইবাদতও ভালো করেছে। ওদের জন্য এ কন্ডিশন কিন্তু অচেনা। আমরা একটু সামনে বল করেছি। সুইং করিয়েছি। দেখা যাবে, এমন বোলিংয়ে হয়তো অন্য দিন আরও ২-৩টা উইকেট বেশি পড়েছে। কনওয়ে একটুর জন্য বেঁচে গেছে। তবে এটাই হয় আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে। আজ অনেক গরমও ছিল। ওদের নিয়ে আমি গর্বিত।

গিবসন আরও বলেন, প্রথম ঘণ্টায় আমরা দারুণ বোলিং করেছি। অনেকবার বল ব্যাটের পাশ দিয়ে গেছে। আমরা সুইং করানো নিয়ে কাজ করেছি। আজ সবাই সুইং করার চেষ্টা করেছে। তাসকিন-শরিফুলরা ব্যাক অব দ্য লেন্থে বল করে বেশি। কারণ সেখানে তেমন সুইং থাকে না। আমরা আজ আরও বেশি উইকেট পেতে পারতাম; কিন্তু বুঝতে হবে, আমরা বিশ্বের অন্যতম সেরা দলের বিপক্ষে খেলছি।

ক্যারিবীয় এই সাবেক তারকা পেসার আরও বলেন, আমরা বাংলাদেশের উইকেটে ঘাস দেখি না। এটা একটা বিষয়। আমরা ভেবেছিলাম শুরুতে মুভমেন্ট পাব এই উইকেটে। সেটা পেয়েছিও। আজ গরমও ছিল। যে কারণে উইকেটের ভেজা ভাবটা বেশিক্ষণ ছিল না। এখন অনেকটা ফ্ল্যাট উইকেট বলা যায়। তবে ছেলেরা যেভাবে বল করেছে, তাতে আমি গর্বিত। ওরা সারা দিন ভালো বল করেছে। মিরাজ একটা প্রান্ত থেকে রান কম দিয়ে বল করে গেছে।

সংক্ষিপ্ত স্কোর

নিউজিল্যান্ড ১ম ইনিংস: ২৫৮/৫ রান (ডেভন কনওয়ে ১২২, উইলি ইয়াং ৫২, হেনরি নিকোলস ৩২*, রস টেলর ৩১, টম বান্ডেল ১১; শরিফুল ২/৫৩)।

Leave a Reply

Your email address will not be published.